বাংলাদেশ,ফিলিস্তিন হতে হাজার মাইল দূরের একটি দেশ। তবুও বাংলাদেশ ফিলিস্তিনের স্বাধীনতা আন্দোলনে পূর্ন সমর্থন দিয়ে এসেছে সবসময় ও বিরোধীতা করেছে সর্বক্ষেত্রে। এই একটা বিষয়ে বাংলাদেশীদের মধ্যে অসাধারন ঐক্য পরিলক্ষিত করা যায়। বাংলাদেশ নামক রাস্ট্রটি জন্ম নেওয়ার পর হতেই ক্ষুদ্র সামর্থ্যে যেভাবে পেরেছে ফিলিস্তিন কি সহায়তা করে গিয়েছে। বহু বাংলাদেশী ফিলিস্তিনে গিয়ে যুদ্ধ করে শহীদ ও হয়েছেন। ফিলিস্তিনের জন্য বাংলাদেশ এর কিছু অবদান নিয়ে পড়তে পারেন এই লিংকে

বর্তমানে ফিলিস্তিনে যোদ্ধা পাঠানো হয় না কারন জনবল ফিলিস্তিনের সমস্যা নয়। কিন্তু,ইজরাইল সহ এত গুলো পশ্চিমা দেশের চোখ রাঙানি সত্যেও বাংলাদেশ ঠিকই ফিলিস্তিন হতে আসা ক্যাডেট দের “বাংলাদেশ মিলিটারি একাডেমি” ও অন্যান্য জায়গায় বিভিন্ন কোর্সে প্রশিক্ষন প্রদান করে থাকে। বাংলাদেশ হতে এ প্রশিক্ষন লাভের পর তারা ফিরে যায় তাদের মাতৃভূমি ফিলিস্তিনে। জানা যায় মোসাদের হাতে এদের অনেকজন শহীদ হয়েছেন।বাংলাদেশ হতে প্রশিক্ষন নেওয়া এমনই ক্যাডেট দের কিছু অসাধারন ফটো শেয়ার করছি।

ফিলিস্তিনি ও বাংলাদেশী ক্যাডেটদের মিস্টিমুখ pc :- Bangladesh Army Magazine

 

BMA তে ট্রেনিং নিতে আসা দুজন ফিলিস্তিনি ক্যাডেট

 

একজন ফিলিস্তিনি ক্যাডেট এর প্রফাইল পিকচার

বাংলাদেশে ২০১৬ সালে জঙ্গী হামলার পর এই ছবিটি প্রফাইল পিকচার হিসেবে দিয়েছিলেন জনৈক ফিলিস্তিনি ক্যাডেট। বাংলাদেশ কে সেকেন্ড হোম আখ্যা দিয়ে বাংলাদেশ এর সেই দূর্যোগে সমবেদনা জানান।

বিমান বাহিনী হতেও প্রশিক্ষন নেয় তারা

এ ছবিতে বাংলাদেশ হতে অরিয়েন্টশন কোর্স কম্পলিট করে সনদ নিচ্ছে জনৈক ফিলিস্তিনি ক্যাডেট। যদিও ফিলিস্তিনের কোন বিমানবাহিনী নেই তবুও ফিলিস্তিনি ক্যাডেট রা এদেশ হতে পাইলট ট্রেনিং সহ ইত্যাদি কোর্স কমপ্লিট করে থাকে।

ফিলিস্তিনি ক্যাডেট রা বাংলাদেশ মিলিটারি একাডেমিতে

বিএনএস বঙ্গবন্ধুতে ফিলিস্তিনি ক্যাডেট

বাংলাদেশ নেভাল একাডেমি হতেও ট্রেনিং নিতে আসে ফিলিস্তিনিরা। ছবিতে বাংলাদেশের সবচেয়ে উন্নত যুদ্ধজাহাজ বিএনএস বঙ্গবন্ধুতে এক ফিলিস্তিনি ক্যাডেট কে দেখা যাচ্ছে।

কোর্স শেষে সনদ গ্রহন

বাংলাদেশ মিলিটারি একাডেমি হতে কোর্স সম্পন্ন করে একজন ফিলিস্তিনি ক্যাডেটের সনদ গ্রহনের ছবি। তিনি বর্তমানে ফিলিস্তিনি প্রেসিডেন্সিয়াল গার্ড  এ কর্মরত।

একসাথে উল্লাসে বাংলাদেশী ও ফিলিস্তিনি ক্যাডেটেরা

ফিলিস্তিনিরা তাদের আন্দোলনে সফল হোক,এটাই কামনা। বাংলাদেশ ও ফিলিস্তিনের এ বন্ধুত্ব টিকে থাকুক চিরদিন।

বি.দ্র :- ছবিগুলো বিভিন্ন সময়ে ISPR কর্তৃক ই প্রকাশিত এবং ক্যাডেটদের থেকে অনুমতি নেওয়া। তাই নিরাপত্তা নিয়ে শংকিত হওয়া অমূলক।

Facebook Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: